অ্যান্ড্রয়েড পি ফিচারস : নতুন যা যা থাকছে!

আমরা যারা অনলাইনে সবজায়গায় গুগলকে ফলো করি, তারা নিশ্চই জানি যে, গুগলের একটি ভালো অভ্যাস বা বদ-অভ্যাস আছে, তা হচ্ছে প্রত্যেকবছর একটি করে নতুন অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন রিলিজ করা যাই হয়ে যাক না কেন। তাদের পূর্ববর্তী অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন কতজন ইউজার এখনও ব্যবহার করছে এবং সবাই তাদের লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনে আপগ্রেড করতে পারবে কিনা তাতেও গুগলের কিছু যায় আসেনা। প্রত্যেকবছরই গুগল নতুন একটি করে অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন রিলিজ করে এবং এরপর গুগলের নিজের পিক্সেল ডিভাইসগুলো এবং অন্যান্য খুব কম সংখ্যক ডিভাইস এই নতুন ভার্সনটির আপডেট পায়।

ঠিক তার পরের বছরেই গুগল আবার নতুন আরেকটি অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন নিয়ে হাজির হয়। যাইহোক, সেই সুত্র ধরেই গুগল এবছর নতুন যে অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনটি রিলজ করতে যাচ্ছে সেটি হচ্ছে অ্যান্ড্রয়েড পি (Android P)। এই ভার্সনটির অ্যাকচুয়াল নাম কি হবে তা এখনো জানা যায়নি, তবে নতুন কি কি থাকছে সেগুলো ইতোমধ্যেই জানা গিয়েছে। আজকে এই অ্যান্ড্রয়েড পি-তে নতুন কি কি ফিচারস থাকছে সেগুলো নিয়েই আলোচনা করবো।

জেসচার বেজড নেভিগেশন সিস্টেম
অ্যান্ড্রয়েড পি-তে থাকবে আইফোন এক্স-এর মত সোয়াইপ নেভিগেশন সিস্টেম

অ্যাপল খুব সম্ভবত প্রযুক্তির দুনিয়ার গাইড। কারন, সবসময়ই খেয়াল করে দেখবেন যে, অ্যাপল তাদের ডিভাইসগুলোতে যা করে এরপর সব স্মার্টফোন ম্যানুফ্যাকচারাররাই তাদের স্মার্টফোনে সেই একই ধরনের ফিচার রাখার চেষ্টা করে। এমনটা আমরা এর আগেও অনেকবার হতে দেখেছি। যেমন- হেডফোন জ্যাক না দেওয়া, ফেস আইডি বা ফেস রিকনিশন ফিচার নতুন করে ইমপ্লিমেন্ট করা, ডিস্প্লে নচ ইত্যাদি। এবার হাজার হাজার স্মার্টফোনপ্রেমীদের দুশ্চিন্তা সত্যি করে এবার গুগলও এই কাজে পিছিয়ে নেই। অ্যান্ড্রয়েড পি-তে গুগল রেখেছে আইফোন এক্স-এর মত হাত দিয়ে সোয়াইপ করে নেভিগেট করার ফিচার। স্মার্টফোনের বেজেল চিকন হওয়ার সাথে সাথে ফোনে হার্ডওয়্যার বাটন রাখাও কঠিন হয়ে পড়ছে। তার জন্যই মুলত এই জেসচার নেভিগেশন সিস্টেম।

অ্যান্ড্রয়েড পিইমেজ সোর্স : Android Authority
অ্যান্ড্রয়েড পি-তে নেভিগেট করার জন্য কোন অনস্ক্রিন নেভিগেশন বার এবং ৩ টি অনস্ক্রিন বাটন থাকবে না। নেভিগেশন বারের জায়গায় থাকবে একটি বার যেটি থেকে ওপরের দিকে সোয়াইপ করে চলে যাওয়া যাবে ওভারভিউ স্ক্রিনে, এরপর লেফট সোয়াইপ করে চলে যাওয়া যাবে রিসেন্ট অ্যাপস মেনুতে, এছাড়া এটিকে স্ক্রল করে আরো অনেক ফাংশন পাওয়া যাবে। এছাড়া ব্যাক বাটন দেওয়া হবে শুধুমাত্র যখন আপনার ব্যাক বাটনটি দরকার হবে তখনই। এমন আরো অনেক সোয়াইপ ফিচারস থাকবে অ্যান্ড্রয়েড পি-তে। এই নেভিগেশন বারটিকে গুগল বলছে কুইক স্ক্রাব।

তবে গুগল এটিকে একমাত্র নেভিগেশন অপশন হিসেবে রাখছে না। চাইলে সেটিংস থেকে এই ফিচারটিকে ডিজেবল করে দিয়ে ট্রেডিশনাল তিন বাটনের অনস্ক্রিন নেভিগেশন বার ফিরিয়ে আনার সুযোগও থাকছে। আর হ্যা, এবার গুগল অফিশিয়ালি তাদের রিসেন্ট অ্যাপস মেনুটিকে চেঞ্জ করে কার্ড সিস্টেমের রিসেন্ট অ্যাপস মেনু করে দিয়েছে অনেকটা আইফোন এবং শাওমি, হুয়াওয়ের ফোনগুলোতে যেমন রিসেন্ট অ্যাপস মেনু থাকে তেমন।

অ্যাডাপ্টিভ ব্যাটারি এবং ব্রাইটনেস
আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স ব্যবহার করে অপটিমাইজ করা হবে ব্যাটারি এবং স্ক্রিন ব্রাইটনেস

অ্যান্ড্রয়েড পি তে থাকবে নতুন ব্যাটারি সেভিং ফিচার যেটি গুগলের দাবীমতে ব্যাটারিকে অপটিমাইজ করার মাধ্যমে ইউজারকে আরো ভালো ব্যাটারি ব্যাকআপ নিশ্চিত করতে পারবে। অ্যাডাপ্টিভ ব্যাটারি ফিচারটি মুলত আপনি ফোনের কোন অ্যাপটি কত বেশি ব্যবহার করেন এবং কোন অ্যাপটি কত ফ্রিকুয়েন্টলি ব্যবহার করেন, অর্থাৎ আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্সের সাহায্যে আপনার ইউজেস হ্যাবিট লক্ষ্য করবে এবং সেই ডেটা অনুযায়ী আপনার প্রত্যেকটি অ্যাপের জন্য নির্দিষ্ট পরিমান ব্যাটারি পাওয়ার অ্যালোকেট করবে যাতে কোন অপ্রয়োজনীয় অ্যাপের জন্য আপনার ব্যাটারি লাইফ কমে না যায়। এটা মূলত ব্যাটারি লাইফ অপটিমাইজ করে আপনার অপ্রয়োজনীয়/ কম-প্রয়োজনীয় অ্যাপসগুলো আপনার ফোনের রিসোর্স কতটুকু ব্যবহার করতে পারবে তা লিমিট করার মাধ্যমে।

অ্যান্ড্রয়েড পিইমেজ সোর্স : AndroidCentral
আপনি কোন অ্যাপটি কখন ব্যবহার করেন এবং কখন কোনটি ব্যবহার করেন না, এই একই ধরনের AI ব্যবহার করে সেগুলোর জন্য আপনার স্ক্রিন ব্রাইটনেসকেও অপটিমাইজ করা হবে। এটি আপনার আশেপাশের পরিবেশ, বাইরের লাইটের পরিমান, আপনার ইউজেস হ্যাবিট, আপনি ফোনে কি করছেন এবং সেটি করার সময় আপনি অন্যান্য সময় কেমন ব্রাইটনেস সেট করে থাকেন, এই সবধরনের ইনফরমেশন অ্যানালাইসিস করে এই নতুন অ্যাডাপ্টিভ ব্রাইটনেস আপনার স্মার্টফোনের স্ক্রিন ব্রাইটনেস সেট করবে।

ড্যাশবোর্ড এবং অ্যাপ টাইমার
নতুন অ্যাপ ড্যাশবোর্ড আপনাকে দেখাবে যে আপনি কোন অ্যাপ কতক্ষন ব্যবহার করেছেন

আরো পড়ুন: অগমেন্টেড রিয়্যালিটি : যেকোনো অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ! (৫.০+)
অ্যান্ড্রয়েড পি এর এই নতুন ড্যাশবোর্ড ফিচারটি মুলত আপনার অতিরিক্ত স্মার্টফোন আসক্তি থেকে মুক্ত করার জন্যই রাখা হয়েছে। এই ফিচারটি মুলত আপনাকে জানতে দেবে যে আপনি আপনার ফোনে কি কি করতে ঠিক কতক্ষম সময় নিয়েছেন। এখানে আপনাকে দেখানো হবে যে আপনি আপনার ফোনে ঠিক কোন অ্যাপটি সবথেকে বেশি ব্যবহার করেন, কোন অ্যাপটি সবথেকে কম ব্যবহার করেন ইত্যাদি ইত্যাদি।যেমন এই ড্যাশবোর্ডে আপনাকে দেখানো হবে যে আপনি আজকে ৪ ঘণ্টা ফেসবুক অ্যাপ ব্যবহার করেছেন, ২ ঘণ্টা ইউটিউবে ভিডিও দেখেছেন অথবা ১ ঘণ্টা ব্রাউজার অ্যাপ ব্যবহার করেছেন ইত্যাদি ইত্যাদি। এছাড়া এই ড্যাশবোর্ড থেকে আপনি এটাও জানতে পারবেন যে আপনি ওইদিন ঠিক কতবার আপনার ফোনটির স্ক্রিন আনলক করেছেন এবং কতগুলো নোটিফিকেশন রিসিভ করেছেন।

অ্যান্ড্রয়েড পিইমেজ সোর্স : Google IO 2018
এছাড়া অ্যান্ড্রয়েড পি এর সাথে ইউটিউব অ্যাপে নতুন একটি ফিচার যোগ করা হবে যেটি আপনাকে বলবে যে আপনি অনেক্ষন ধরে ভিডিও দেখেছেন কিনা। যদি অনেক বেশি সময় ধরে ভিডিও দেখেন, তাহলে আপনাকে জানানো হবে যে আপনি অনেক্ষন ধরে ভিডিও দেখেছেন এবং এবার আপনার বেরিয়ে যাওয়া উচিত। এছাড়া এর সাথে থাকছে অ্যাপ টাইমার ফিচার, যার সাহায্যে আপনি নিজেই লিমিট করে রাখতে পারবেন যে আপনি কোন অ্যাপটি ঠিক কতক্ষনের জন্য ব্যবহার কর‍তে চান।

এছাড়া আরও একটি মাইনর ফিচার থাকছে যেটির নাম গুগল রেখেছে উইন্ড ডাউন। এই ফিচারটি মুলত রাতে যখন আপনার ঘুমানোর সময় হবে তখন আপনার সম্পূর্ণ ডিভাইসটির থিম চেঞ্জ করে একটি সাদা-কালো থিম দিয়ে দেবে যা আপনার চোখের ওপরে কম প্রভাব ফেলবে এবং আপনাকে ঘুমারে সাহায্য করবে। এর পরের দিন সকালে আবার সাদা-কালো থিমটি চেঞ্জ হয়ে রেগুলার থিম চলে আসবে।

ডিসপ্লে নচ এবং ইউজার ইন্টারফেস
অ্যান্ড্রয়েড পি-তে অফিশিয়ালি থাকছে ডিসপ্লে নচ সাপোর্ট

আপনি হয়তো দেখেছেন যে অ্যাপল তাদের আইফোন এক্স এর ডিস্প্লের ওপরে একটি ছোটো ডিসপ্লে কাটআউট (যেখানে ক্যামেরা এবং অন্যান্য সেন্সর থাকে) রাখার পরে থেকে প্রায় ছোট বড় অধিকাংশ স্মার্টফোন ম্যানুফ্যাকচারারই তাদের ডিভাইসে আইফোন এক্স এর মত নচ রাখার চেষ্টা করছে। ওয়ানপ্লাস, এলজি, ভিভো, অ্যাসুস, হুয়াওয়ে সবাই তাদের নতুন ডিভাইসগুলোতে নচ রেখেছে। এই ডিসপ্লে নচ মুলত ২০১৮ এর সবথেকে বড় স্মার্টফোন ট্রেন্ড যেটি স্যামসাং বাদে সব ম্যানুফ্যাকচারারই ফলো করতে চাইছে। আর গুগলও তাদের অ্যান্ড্রয়েড পি-তে অফিশিয়ালি নচ-এর সাপোর্ট রাখছে। এমনকি অ্যান্ড্রয়েড পি এর ডেভেলপার অপশনেও এমন একটি ফিচার রাখা হয়েছে যেটির সাহায্যে যেসব ডিভাইসে আগে থেকে নচ নেই সেগুলোর ডিসপ্লের ওপরে নচ সিমুলেট করা যাবে অ্যাপ ডেভেলপমেন্টের উদ্দেশ্যে।

অ্যান্ড্রয়েড পিইমেজ সোর্স : 9To5Google
গুগল তাদের সম্পূর্ণ অ্যান্ড্রয়েড পি-কেই নচ এর জন্য অপটিমাইজড করছে। এমনকি এমনও রিউমর শোনা যায় যে গুগলের নেক্সট পিক্সেল ফোন অর্থাৎ পিক্সেল থ্রি-তেও থাকতে পারে আইফোন এক্স এর মত নচ। যদিও তা সত্যি হওয়ার সম্ভাবনা কম। তবে অ্যান্ড্রয়েড পি যে নচ ট্রেন্ডকে সমর্থন করছে এবং আরো উৎসাহিত করছে তাদের সম্পূর্ণ অপারেটিং সিস্টেমকে নচের জন্য অপটিমাইজ করে, সে বিষয়ে কোন সন্দেহ নেই।

এছাড়া অ্যান্ড্রয়েড পি তে আরো অনেক ইউজার ইন্টারফেস ইমপ্রুভমেন্টও থাকছে যেমনটা প্রত্যেক নতুন অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনেই থাকে। অ্যান্ড্রয়েড পি কে আগের সকল অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনের তুলনায় আরও বেশি কালারফুল এবং আরও বেশি ফাস্ট ও রেসপনসিভ করা হয়েছে। এছাড়া সামনের দিনগুলোতে রাউন্ডেড কর্নারযুক্ত ডিসপ্লের ফোনই বেশি দেখা যাবে। এই কারনে ডিভাইসের সাথে তাল মিলিয়ে ওএস এর বিভিন্ন ডিজাইন এলিমেন্ট এবং ডায়লগ বক্সগুলোকেও রাউন্ডেড শেপ দেওয়া হয়েছে যা ইউজার ইন্টারফেসকে আরেকটু বেশি সুন্দর লুক দিতে সাহায্য করে। এছাড়া আরও অনেক ছোট-বড় ইম্প্রুভমেন্টও আছে যেগুলো লিখে শেষ করা যাবেনা।

Related posts

Leave a Comment